আজ সোমবার,১০ই ডিসেম্বর, ২০১৮ ইং, ২৬শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, ৩রা রবিউস-সানি, ১৪৪০ হিজরী
>> রাজাপুর থানার নতুন অফিসার ইনচার্জ মো:জাহিদ হোসেন রাজাপুর রিপোর্টার্স ইউনিটির সদস্যদের নিয়ে মতবিনিময় সভা >> বিএনপির কাছে দুই আসন দাবি লেবার পার্টির …… >> রাজাপুরে জনসচেতনতা মূলক কমিউনিটি পুলিশিং মতবিনিময় সভা >> শোকরানা মাহফিলের মোড়কে ৫ মে’র হত্যাকাণ্ড অস্বীকারের আয়োজন: বাবুনগরী >> ভর্তি পরীক্ষা দিতে আসা শিক্ষার্থীদের জন্য নোয়াখালীবাসীর প্রশংসনীয়  উদ্যোগ >> পদ্মার সেতুর অগ্রগতি দেখে এলেন প্রধানমন্ত্রী >> ঢাবির ভর্তি পরীক্ষায় জালিয়াতি, ২ শিক্ষার্থী রিমান্ডে >> অক্টোবরে বিএনপির আগে মাঠ দখল করবে ১৪ দল: নাসিম >> গণতন্ত্রের পক্ষের সব শক্তির ঐক্য চাই: বি চৌধুরী >> আগামীকাল বরিশালে অাসছেন ওয়াইসিডির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা কামরুল হাসান     

১০ বছর পর মিলবে না কলা!

জানুয়ারি ২৯, ২০১৭,১০:২৫ অপরাহ্ণ

 
Spread the love

আপনি কি রোজ কলা খেতে পছন্দ করেন? যদি উত্তরটা হ্যাঁ হয়, তবে কিন্তু আপনার জন্য একটা খারাপ খবর আছে। অভ্যাসটা বদলে ফেলুন। তাতেই মঙ্গল। কারণ বড় জোর আর ১০ বছর। তারপর আর পাওয়া যাবে না কলা! এ কথা বলছে ক্যালিফোর্নিয়া ইউনিভার্সিটির গবেষকরা। দীর্ঘদিন ধরে তারা একটি গবেষণা চালায়। সেখান থেকেই উঠে এসেছে এমন তথ্য।

ক্যালিফোর্নিয়া ইউনিভার্সিটির গবেষকদের কথায়, ইয়েলো সিগাটোকা, ইমুসাই লিফ স্পট ও ব্ল্যাক সিগাটোকা-তিন ধরনের ফাংগাল ডিজিস ক্রমেই ক্ষমতা নষ্ট করছে কলাগাছের। এই অবস্থাকে বিজ্ঞানের ভাষায় বলা হয় সিগাটোকা কমপ্লেক্স। এর ফলে কলাগাছের একদিকে প্রতিরোধ ক্ষমতা কমে যাচ্ছে।

অন্যদিকে মেটাবলিজমের ফলে এইসব ছত্রাক ক্রমেই ছড়িয়ে পড়ছে কলাগাছে। কলাগাছের শরীরে তৈরি হচ্ছে বিভিন্ন এনজাইম। ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে কলাগাছের বিভিন্ন কোষ। ক্রমেই কমে আসছে কলাগাছের প্রজনন ক্ষমতা। একটা সময়ের পর আর ফল ধরবে না কলাগাছগুলিতে।

২০০১ সালে প্রথম সামনে আসে সিগাটোকা কমপ্লেক্সের বিষয়টি। তা রুখতে নানারকম পরীক্ষা-নিরীক্ষাও চলে। প্রথমে সামনে এসেছিল ব্ল্যাক সিগাটোকার লক্ষণ। সেটিকে কোনোমতে বাগে আনাও হয়। কিন্তু এরপরই সামনে আসে আরও দুটি সংক্রমণ। যা নির্মূল করা মোটে সহজ নয়।

বিশ্বের প্রায় ১২০টি দেশে প্রতিবছর প্রায় ১০ কোটি টন কলা উৎপন্ন হয়। একদিকে এই ছত্রাকের সংক্রমণ। অন্যদিকে গ্লোবাল ওয়ার্মিং। এই দুইয়ের টানাপোড়েনে অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে কলার ভবিষ্যৎ। গবেষকরা মনে করছেন আগামী ৫ থেকে ১০ বছরের মধ্যে অস্তিত্ব সঙ্কটে পড়তে হবে কলাকে। বাঙালির রোজকার খাবারের তালিকা থেকে হারিয়ে যেতে পারে এই সুস্বাদু, বহু উপযোগী ফল।

সূত্র: সংবাদ প্রতিদিন

 

Chairman

Md. Riadul Islam (Afzal)
Chairman
www.bdnewstv24.com
 

সর্বশেষ সংবাদ

 

সারাবাংলা

 

 

Site Developed By: Md. Shohag Hossain